স্মার্ট কার্ড কতবার পাবেন জানেন কি ? জেনে নিন ২ মিনিটে

আমরা অনেকেই জানি না যে একজন ব্যক্তি কত বার স্মার্ট কার্ড পেতে পারে। অনেকের আইডি কার্ড হারিয়ে যায় বা অন্যকোনো কারনে চিরতরে নষ্ট বা অকেজো হয়ে যায়।

আইডি কার্ড সংশোধনের আবেদন করার পর পুনরায় কি স্মার্ট কার্ড পাবে ? এই বাপার এ অনেকেই জানতে চান। জদিও এ বাপারে বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন সুস্পষ্ট ধারনা দিয়েছে। কিন্তু আসল কথা হল তা আমরা সাধারন মানুষ অনেকেই জানি না।

এখন বলে রাখা ভাল যে অনেকেই স্মার্ট কার্ড সংশোধনের জন্য আবেদন করে থাকেন। সেই আবেদন এর পর যখন সঠিক নিয়মে নতুন আইডি কার্ড ডাউনলোড করতে চান তখন একটি প্রিন্ট কপি প্রদান করে নির্বাচন কমিশন।

কিন্তু আপনি কি জানেন স্মার্ট কার্ড পাবেন কিনা বা স্মার্ট কার্ড পাউয়ার জন্য কি কি শর্ত রয়েছে? যদি না জেনে থাকেন তবে এই পোস্ট আপনার জন্যই।

কেননা বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন নতুন প্রজ্ঞাপনা জারি করেছে। চলুন জেনে নিই কথা না বারিয়ে।

একজন প্রার্থী কতবার স্মার্ট কার্ড পাবে

বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন এর সম্প্রতি এনআইডি সংক্রান্ত সকল দায়িত্ব বাংলাদেশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এর নিকট হস্তান্তর হচ্ছে।

বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন এর জাতীয় পরিচয় পত্র নিবন্ধন ও সংশোধনের দায়িত্ব বাংলাদেশ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এর নিকট হস্তান্তর হচ্ছে। সেই লক্ষে নতুন NID Server চালু হতে পারে এবং পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত নতুন নীতিমালা বহাল থাকবে।

নতুন নীতিমালাটি কি ?

বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন এর নতুন নীতিমালা অনুসারে একজন ব্যাক্তির নামে একাধিক স্মার্ট কার্ড থাকতে পারবে না। যদি উক্ত বাক্তি স্মার্ট কার্ডটি হারিয়ে ফেলেন তবে সংশ্লিষ্ট থানায় জিডি করবে।

তারপর অনলাইনে আবেদন করবে। আবেদন মঞ্জুর হলে অনলাইন থেকে পিডিএফ ডাউনলোড করে নিয়ে পরবর্তীতে লেমিনেটিং করে বাবহার করতে পারবে।

আর যদি নির্বাচন কমিশন কর্তৃক কোন ভুল আপনার স্মার্ট কার্ড এ হয়ে থাকে তবে অবশ্যই আপনি সংশোধনের আবেদন করতে পারবেন নির্দিষ্ট পরিমান ফি দিয়ে। তাদের জন্য আইডি কার্ড রি ইসসু আবেদন করতে হবে।।

অনলাইনে রি-ইস্যু আবেদন দুই (০২) ভাবে হতে পারে। একটি হচ্ছে জরুরি এবং অন্যটি সাধারন। যেভাবেই হোক না কেন আপনি যদি রি ইস্যু আবেদন করেন তবে কয়েকদিনেই মদ্ধেই আইডি কার্ড রেডি হয়ে যাবে।

তবুও আপনাকে স্মার্ট কার্ড একবারে বেশি দেওয়া হবে না। তাই বলা যায় একজন বাক্তি ১ বার এর বেশি কখনই স্মার্ট কার্ড পাবে না।

নির্বাচন কমিশনের বক্তব্য জেনে নিন

সুখবর

এত হতাশার মাঝেও সুখবর আছে। ২০১৬ সালের হালনাগাদ অনুসারে বরতমানে বাংলাদেশের মত ভোটার সংখ্যা ১১ কোটি ৩২ লাখ ৮৭ হাজার ১০ জন। তাদের মদ্ধে স্মার্ট কার্ড ধারী রয়েছেন মাত্র ৭ কোটি। বাকি ৫ কোটি মানুধ এখন স্মার্ট কার্ড পান নি।

এ বছর বাংলাদেশ সরকার ৩ কোটি স্মার্ট কার্ড বিরতনের সিদ্ধান গ্রহন করেছে। তাই অতি শিগ্রই নোটিস এর মাধ্যমে জানিয়ে দেওয়া হবে যে কবে আইডি কার্ড এর স্মার্ট কপি পাবেন এই বাপার এ বিস্তারিতভাবে।

কিছু প্রশ্নোত্তরঃ

যারা সংশোধনের জন্য আবেদন করেছেন তারা কি পুনরায় স্মার্ট কার্ড পাবে ?

উত্তর হচ্ছে না। কেননা বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশন এর বরতমান তথ্য অনুসারে কোন বাক্তির ২টি স্মার্ট কার্ড প্রাপ্রি সম্ভব নয়।

নতুন ভোটাররা কি স্মার্ট কার্ড পাবে?

উত্তর হচ্ছে হ্যাঁ। অরথায় ২০২১ সালের পর জারা ভোটার হয়েছেন তারা স্মার্ট কার পেতে প্রেন কেননা বাংলাদেশ সরকার নতুন করে ৩ লক্ষ স্মার্ট কার্ড বিতরনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

স্মার্ট কার্ড এর বিতরণ কবে শুরু হবে ?

ভিদিওটি ভালো করে দেখলে আসা করি সব ভুল ধারনা ভেঙ্গে যাবে। কবে পাবেন সেটাও বলা আছে ভিদিও তে। আসল কথা হল বিতরন কার্যক্রম শুরু হলে তা মাইকিং লিফলেট কিংবা অন্নভাবে প্রচারনার মাধ্যমে জানিয়ে দেওয়া হবে।

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *